Sunday, May 22, 2022

কবুতর পুষলে মুরগি ফ্রি

শাহোকা শফি মাহমুদ
প্রাচীন আমলে কবুতরের মাধ্যমে চিঠি আদান-প্রদান করা হতো। বাংলা বাকধারায় ‘সুখের পায়রা ’ বলে একটি কথা আছে। শখ বশত সেই সুখের পায়রা পুষে নজরুল মাস্টার সুখের পরশ পেয়েছেন। তিনি বর্তমানে কাজটিকে বাণিজ্যিকভাবে নিয়েছেন। প্রতি মাসে ১৫ হাজার টাকা বাড়তি আয়ের উৎসে পরিণত হয়েছে তার এ কাজটি।

নজরুল ইসলাম শিক্ষকতা করেন। এ কারণে তার এলাকায় তিনি নজরুল মাস্টার বলে পরিচিত। ২১ বছর ধরে তিনি শিক্ষকতা পেশার সাথে জড়িত। যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলার শ্রীরামপুর আলিম মাদ্রাসার বিজ্ঞান শিক্ষক তিনি। বাড়ি ওই উপজেলার নওদাপাড়া গ্রামে। বাড়িতেই তিনি গড়ে তুলেছেন কবুতরের একটি ফার্ম। তার ফার্মে এখন বিভিন্ন প্রজাতির ২০০ কবুতর আছে।

তিনি জানান, ১৯৮৫ সালের দিকে যখন ৪র্থ শ্রেণির ছাত্র তখন থেকে কবুতর পোষা শুরু করেন। ওই সময় থেকে প্রায় ৩০ বছর তার বাড়ি একদিনের জন্যও কবুতর শূন্য হয়নি। এরপর ২০১৬ সালে দিকে তিনি বাণিজ্যিক ভিত্তিতে কবুতরের ফার্ম গড়ে তোলার পরিকল্পনা নেন। সে সময় তিনি পুরোমাত্রায় শিক্ষক। ইতোমধ্যে এ পেশার ১৬টি বছর কেটে গেছে তার।

বাংলাদেশে ১০০টিরও বেশি জাতের কবুতর রয়েছে। জাতগুলো হলো, ফেন্সি, হাই ফ্লাইং, বুনো/জারালি, গোলা, গোলি, ময়ূরপঙ্খী, ফ্যানটেল, টাম্বলার, লোটান, লাহরি, কিং, জ্যাকোবিন, মুকি, সিরাজী, গ্রীবাজ, চন্দন প্রভৃতি।
নজরুল মাস্টার জানান, শুরুতেই তিনি এক লাখ টাকা দিয়ে ১০ জোড়া কবুতর কেনেন। অর্থাৎ প্রতি জোড়ার দাম ছিল ১০ হাজার টাকা। ওই ১০ জোড়া কবুতরের সবগুলো ছিল চিন, আমেরিকা ও জার্মানির ফেন্সি প্রজাতির। এই প্রজাতির কবুতর দামে বেশি হলেও রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম। তারপরও কবুতর পালনে অভিজ্ঞতা না থাকায় ১০ জোড়া কবুতরের সবগুলো রোগাক্রান্ত মারা যায়। হতাশ হবার কথা। কিন্তু তিনি হাল ছাড়েননি। এ কারণে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা সম্পন্ন হোমার, হাই ফ্লাইং ও দেশি বুনো/জালালি প্রজাতির কবুতর পালনে ঝুঁকে পড়েন। পূর্ণোদ্যমে আবার শুরু করেন কবুতর পালন। বর্তমানে তার ফার্মে ১০ জোড়া হোমার, ৬০ জোড়া হাই ফ্লাইং ও ১০ জোড়া দেশি জাতের কবুতর আছে। হোমারের প্রতি জোড়া ৫হাজার টাকা, হাই ফ্লাইং ৩ হাজার টাকা ও দেশি দেড় হাজার টাকা দরে বিক্রি হয়।

প্রতি জোড়া কবুতরে একটি পুরুষ ও একটি স্ত্রী কবুতর থাকে। তারা ২০-৩০ বছর পর্যন্তও জীবিত থাকে। স্ত্রী কবুতর ডিম পাড়ে এবং পুরুষ ও স্ত্রী উভয় কবুতরই ডিমে তা দিয়ে বাচ্চা ফোঁটায়। মোটামুটি ১৮ দিন ডিমে তা দেয়ার পর ডিম থেকে বাচ্চা ফোটে। একজোড়া কবুতর থেকে বছরে ১০-১২ জোড়া বাচ্চা পাওয়া যায়। বাচ্চা ৫-৬ মাস বয়সে আবার ডিম দেয়া শুরু করে।

ময়মনসিংহ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক রাকিব খান জানান, কবুতরের প্রধান খাবার শস্যদানা। যেমন, গম, ভুট্টা, যব, মটর, খেসারি, সরিষা, চাল, ধান, কলাই ইত্যাদি। তবে কবুতরের খাদ্যে পরিমাণমতো আমিষ, চর্বি, শর্করা, ভিটামিন, খনিজ ইত্যাদি উপাদান থাকা উচিত। খাবারের সাথে অস্থিচূর্ণ বা চুনাপাথর বা ঝিনুকের গুঁড়া, ভিটামিন বা এমাইনো অ্যাসিড প্রিমিক্স, লবণ ইত্যাদিও মিশ্রিত করা হয়।একটি কবুতর প্রতিদিন সাধারণত ৩০-৫০ গ্রাম খাবার গ্রহণ করে। শীতকালে প্রতিদিন পানি গ্রহণের পরিমাণ ৩০-৬০ মিলিলিটার এবং গ্রীষ্মকালে ৬০-১০০ মিলি।

কবুতরের রোগ-ব্যাধি তুলনামূলক কম হয়। সচরাচর কবুতরের যে রোগগুলো হয়ে থাকে, তা হলো রাণীক্ষেত ও পক্স। এছাড়া পরজীবী দ্বারাও আক্রান্ত হতে পারে। এজন্য সময়মতো টিকা প্রদান করতে হবে এবং জীব নিরাপত্তা ব্যবস্থা মেনে চলতে হবে। নিয়মিত সুষম খাদ্য দিলে এবং পর্যাপ্ত আলো, বাতাসের ব্যবস্থা থাকলে রোগ-ব্যাধি কম হয়ে থাকে।

নজরুল ইসলাম জানান, ২০০ কবুতরের প্রতিমাসে খাদ্য বাবদ খরচ হয় পাঁচ হাজার টাকা। এই খরচ বাদে তার লাভ থাকে ১৫ হাজার টাকা। কবুতরের খাদ্যের বাদ দেয়া অংশে ২০টি মুরগির প্রতিদিনের খাদ্যের চাহিদা পূরণ হয়। ওই মুরগির খাদ্য বাবদ তার কোন খরচ নেই। এই মুরগিতে যে ডিম দেয় তাতে তার পারিবারিক চাহিদা মিটিয়েও কিছু বাড়তি আয় হয়। ‘কবুতর পুষলে মুরগি ফ্রি’, হাসতে হাসতে বললেন তিনি।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সর্বশেষ

যশোরে সন্ত্রাসীদের বর্বর নির্যাতনে যুবকের মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক: যশোরে সন্ত্রাসীদের বর্বর নির্যাতনে এক যুবকের মৃত্যুর অভিযোগ উঠেছে। আজ রোববার (২২...

যশোরে অর্ধগলিত ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাসেল হোসেন (২৪) নামে এক যুবকের অর্ধগলিত ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ...

কোন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানই এভাবে চলতে পারে না

যশোরের মণিরামপুর উপজেলার জোকা কোমলপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নবিরুজ্জামান বিদ্যালয়ে যান না...

ভোরের ঝড়ে লণ্ডভণ্ড যশোরাঞ্চল

উপড়ে পড়েছে গাছপালা ভেঙে গেছে বাড়িঘর-বিদ্যুতের খুঁটি অশনির আঘাত না কাটতেই কৃষকের ঘরে কালো থাবা শাহারুল...

যশোর প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট আরএন রোডের জয় ছিনিয়ে নিল হাসানুর

নিজস্ব প্রতিবেদক: শনিবার সকালে যশোর অঞ্চলের উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া কালবৈশাখী দমকা হাওয়া শামস্-উল-হুদা...

সুজলপুরে দুই বন্ধুকে মারপিটের অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক: পূর্বশত্রুতার জের ধরে যশোর শহরতলীর সুজলপুরে সাকিব (২৫) ও নাহিদ (২৩) নামে...