তাইওয়ানে শক্তিশালী ভূমিকম্প

ভূমিকম্প

তাইওয়ানের পূর্বাঞ্চলীয় উপকূলে শক্তিশালী ভূমিকম্প আঘাত হেনেছে। এই দ্বীপ ভূখণ্ডের কেন্দ্রীয় আবহাওয়া ব্যুরো বলছে, সোমবার সন্ধ্যার দিকে আঘাত হানা এই ভূমিকম্পে রাজধানী তাইপেও কেঁপে উঠেছে। তবে ভূমিকম্পে কোনও হতাহত কিংবা ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে কি-না তাৎক্ষণিকভাবে তা জানা যায়নি।

ডেস্ক রিপোর্ট : আবহাওয়া ব্যুরো বলছে, তাইওয়ানের পূর্ব উপকূলীয় এলাকায় আঘাত হানা ভূমিকম্পের মাত্রা রিখটার স্কেলে ছিল ৬। ভূপৃষ্ঠ থেকে ১৯ কিলোমিটার গভীরে এই ভূমিকম্পের উৎপত্তি হয়েছে। তবে মার্কিন ভূতাত্ত্বিক জরিপ সংস্থা ইউএসজিএস বলছে, তাইওয়ান ৬ দশমিক ২ মাত্রার ভূমিকম্পে কেঁপে উঠেছে।

ভূমিকম্পের কেন্দ্র ছিল স্বশাসিত এই দ্বীপ ভূখণ্ডের পূর্বাঞ্চলের উপকূলীয় শহর হুয়ালিয়েন থেকে ৫৬ কিলোমিটার দূরে সমুদ্রে। তবে তাৎক্ষণিকভাবে কোনও ক্ষয়ক্ষতি কিংবা হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছে আবহাওয়া ব্যুরো।

স্থানীয় সময় বিকেল ৫টা ৪৬মিনিটের দিকে ব্যস্ত সময়ে শক্তিশালী কম্পন অনুভূত হয়েছে। এ সময় শহরের ভবনগুলো তীব্রভাবে দোল খায়।

‘এই কম্পন প্রায় ২০ সেকেন্ড ধরে স্থায়ী ছিল। কম্পনের সময় মাটি ডান এবং বাম দিকে সরে যাচ্ছিল।’

দু’টি টেকটোনিক প্লেটের সংযোগস্থলের কাছে অবস্থিত তাইওয়ানে প্রায়ই ভূমিকম্প আঘাত হানে। যে কারণে এই মাত্রার কিছু ভূমিকম্প সেখানে প্রাণঘাতী হয়ে উঠতে পারে। যদিও ভূমিকম্পের গভীরতা এবং আঘাত হানার স্থানের ওপর এর ভয়াবহতা নির্ভর করে।

এর আগে, গত অক্টোবরে তাইওয়ানের উত্তরপূর্বাঞ্চলীয় ইলান শহরে সাড়ে ৬ মাত্রার ভূমিকম্প আঘাত হানে। ভূপৃষ্ঠ থেকে প্রায় ৬৭ কিলোমিটার গভীরে ভূমিকম্পের উৎপত্তি হওয়ায় সেই সময় সামান্য ক্ষয়ক্ষতি হয়েছিল।

দর্শনীয় পর্যটন কেন্দ্র হুয়ালিয়েনে ২০১৮ সালে ৬ দশমিক ৪ মাত্রার ভূমিকম্প আঘাত হেনেছিল। সেই ভূমিকম্পে অন্তত ১৭ জনের প্রাণহানি এবং আরও প্রায় ৩০০ জন আহত হয়েছিলেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে