শনিবার, ডিসেম্বর ১০, ২০২২

বেপরোয়া ভেকুটিয়ার ‘ভূমিদস্যু আব্দার’

খাস ও হিন্দু সম্পত্তি দখলে নিয়ে প্লট বিক্রি
কৃষকের জমি দখলে নিতে কালভার্ট বন্ধ

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক

নাম আব্দার হোসেন। রাজনীতিতে নেই। কিন্তু অদৃশ্য খুঁটির জোর আছে। সেই জোরে হিন্দু সম্পত্তি ও খাস জমি থেকে শুরু করে কৃষকের জমি দখলে নেয়া তার নেশা। তার শ্যেণ দৃষ্টি যে জমির ওপর পড়ে সেই জমি তার হয়। ভয়ে নামমাত্র দামে জমি বিক্রি করতে বাধ্য হন জমি মালিকরা। এ চিত্র যশোর সদরের ভেকুটিয়া গ্রামের।
স্থানীয়দের অভিযোগে জানা যায়, ভেকুটিয়ায় জমি মালিকদের কাছে আব্দার হোসেন মূর্তিমান আতঙ্কের নাম। জমি দখল ও প্লট করে বিক্রি করা তার নেশা। অদৃশ্য খুঁটির জোরে এলাকায় একচ্ছত্র আধিপত্য রয়েছে। পেশায় ছিলেন চাকরিজীবী। বিজিবি’র সৈনিক পদে কাজ করতেন। তার বাবা মোতালেব হোসেন সেলুনে কাজ করে সংসার নির্বাহ করতেন। ১৯৮৭-৮৮ সালের দিকে পরিবারটি জড়িয়ে পড়ে ভারতে নারী পাচারসহ নানা প্রতারণামূলক কাজে। ওইসব ঘটনায় দুটি মামলা হয়। বে-আইনী কর্মকা-ের কারণে পরিবারটির ওপর হামলার ঘটনাও ঘটে। জনরোষের মুখে পরিবারটি রাতের অন্ধকারে গ্রাম ছেড়ে পালিয়ে যায়। বছর কয়েক আগে আব্দার হোসেন চাকরি ছেড়ে গ্রামে এসে শুরু করেন জমি কেনাবেচার ব্যবসা। স্থানীয় তহশীল অফিসের নায়েব মুক্তি হিন্দু ও খাস সম্পত্তি আব্দারের নামে করিয়ে দিতে সহায়তা করতেন। এরমধ্যে এলাকায় বেশ প্রভাব বিস্তার করেন আব্দার। গ্রামে ফিরে আসে তার পরিবার।

কিছুদিনের মধ্যে আব্দার হোসেনের প্লট ব্যবসা জমজমাট হয়ে ওঠে। ভেকুটিয়ার সুজলপুরে গড়ে তোলেন এমএ এন্টারপ্রাইজ নামে একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান। আব্দার হোসেনের এক প্রতিবেশি নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, সম্প্রতি এক ব্যক্তির জমির পথ আটকে দেন আব্দার হোসেন। এক পর্যায়ে জমি মালিক আব্দারের কাছে ২৭ লাখ টাকায় জমি বিক্রি করতে বাধ্য হন। সেই জমি আব্দার হোসেন বিক্রি করেন ৬০ লাখ টাকায়।

গত এক মাসের ব্যবধানে আব্দার হোসেন রাজ্জাক দারোগার জমি, শেখ পাড়ার বদরের বাড়ির সামনে ও উত্তরপাড়ার মাহবুব স্যারের উত্তর পাশের পানি নিস্কাশনের ৩টি কালভার্টের মুখ বন্ধ করে দিয়েছেন। কারণ হিসেবে স্থানীয়রা জানান, মোফা হোসেন ও হিন্দুপাড়ার মৃত কার্তিকের পুত্র দীপক সরকার জমি বিক্রি করতে রাজি না হওয়ায় আব্দার হোসেন পানি নিস্কাশনের কালভার্ট বন্ধ করে তাদের জিম্মি^ কওে ফেলেন। জমিও দখল করেছেন আব্দার হোসেন। এঘটনায় দুই ভুক্তভোগী আব্দার হোসেনের নামে দুটি মামলা করেছেন কিন্তু পেছন ছাড়ছে না আব্দার।

দৈনিক কল্যাণ দপ্তর থেকে ফোনে যোগাযোগ করা হলে মোফা হোসেন বলেন, জমি ঘিরে নিয়েছিল আব্দার কিন্তুঝামেলা এড়াতে বিক্রি করে দিয়েছি। এখন দীপকের জমি দখলে নিতে মরিয়া আব্দার হোসেন। এ বিষয়ে জানতে ফোন করা হলে দীপক সরকার রিসিভ করেননি।

সরেজমিনে গিয়ে জানা গেছে, সুজলপুর পুরনো বাড়ির দক্ষিণের মাঠ, ভেকুটিয়ার বকুলতলা বাজার রাস্তার মাঝের দুপাশের মাঠ ও জামতলা হতে ভেকুটিয়া ইউনিয়ন পরিষদ রাস্তার দু’পাশের মাঠে আব্দার হোসেন অনেেেকর জমি হাতিয়ে নিয়েছেন। ভয়ভীতি দেখিয়ে নামমাত্র দামে এসব জমির মালিক বনে গেছেন আব্দার হোসেন।

এ বিষয়ে জানতে ফোন করা হলে আব্দার হোসেন বলেন, এসে প্রমাণ করে যান। অভিযোগের সত্যতা প্রমাণ করাসহ আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের দায়িত্ব সাংবাদিকের নয় বলা হলে তিনি বলেন, সব অভিযোগ মিথ্যা।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সর্বশেষ

ব্রাজিলের স্বপ্ন ভেঙে সেমিফাইনালে ক্রোয়েশিয়া

ক্রীড়া ডেস্ক : ব্রাজিলের সব আক্রমণ গিয়ে প্রতিহত হচ্ছিল ক্রোয়েশিয়ার দুর্ভেদ্য প্রাচীরে। সত্যিই যেন এদিন...

দুর্নীতির বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হবে: ডিসি

নিজস্ব প্রতিবেদক: আন্তর্জাতিক দুর্নীতিবিরোধী দিবস-২০২২ উপলক্ষে যশোরে আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান হয়েছে। শুক্রবার...

যশোরে ৮ নারী পেলেন শ্রেষ্ঠ জয়িতার পুরস্কার

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক: শুক্রবার ছিল নারী জাগরণের অগ্রদূত রোকেয়া সাখাওয়াত হোসেনের ১৪২ তম জন্মবার্ষিকী ও...

বিয়ে করতে অস্বীকার করায় কলেজছাত্রীর আত্মহত্যার চেষ্টা

নিজস্ব প্রতিবেদক: শারীরিক সম্পর্কের পর বিয়ে করতে অস্বীকার করায় এক কলেজছাত্রী হারপিক পানে আত্মহত্যার...

যশোরে চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে টাকা আত্মসাত, একজন আটক

নিজস্ব প্রতিবেদক: চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে প্রতারণার মাধ্যমে টাকা আত্মসাতের অভিযোগে কোতোয়ালি থানায় মামলা হয়েছে।...

ইসলামী ধারার তিনটি ব্যাংক থেকে টাকা তুলে নিচ্ছে যশোরের গ্রাহকরা

নিজস্ব প্রতিবেদক: যশোরের গ্রাহকরা ইসলামী ধারার তিনটি ব্যাংক থেকে টাকা তুলে নিচ্ছে। নানা অনিয়মের...