রবিবার, সেপ্টেম্বর ২৫, ২০২২

যৌতুক লোভীদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা চাই

যৌতুকের জন্য নারী নির্যাতনের ঘটনা এ সমাজে অহরহ ঘটছে। কিন্তু প্রতিকারের কোনো স্থায়ী পথ বেরুচ্ছে না। আমরা কথায় কথায় বিনয়ী ভদ্র খোঁজ করি। এ মানবিক গুণের কারণেই এই খোঁজটা করা হয়। কেউ চলার পথে ভুল করলে আমরা তাকে অভদ্র বলে গালি দেই। কিন্তু অনেককেই দৃশ্যত ভদ্র মানুষ বলে মনে হয়। কিন্তু নৈতিকতার অভাব হলে ভদ্র নামধারীরা জানোয়ারই হয়। তাদেরই হাতে নির্যাতিত হবে নারী, নির্যাতিত হবে অগণিত মা-বোন।

এমনই এক ঘটনা দৈনিক কল্যাণে গত ১৩ সেপ্টেম্বর প্রকাশ হয়েছে। ওই খবরে বলা হয়েছে- বিয়ের দুই মাসের মাথায় যৌতুকের কারণে জীবন দিতে হয়েছে মণিরামপুর উপজেলার দূর্গাপুর গ্রামের সোহানের স্ত্রী ফাতেমাকে। ব্যবসার নামে স্ত্রীর কাছে সোহান তিন লাখ টাকা দাবি করে। এর মধ্যে অতি সম্প্রতি এক লাখ টাকা এনে দিলেও তাতে সন্তুষ্ট হতে না পারায় ফাতেমাকে হত্যা করে মণিরামপুর হাসপাতালে ফেলে রেখে সোহান পালিয়ে যায়।

যৌতুকের জন্য ফাতেমার জীবন দেয়ার ঘটনা হাজারো ঘটনার খণ্ড চিত্র মাত্র। যৌতুক লোভী যুবকদের পরিবার অতি নিকৃষ্ট মানের। প্রেম-প্রীতি, স্নেহ-ভালোবাসা, মায়া-মমতা, বলতে ওই পরিবারের সদস্যদের মধ্যে নেই। বিয়ের দুই মাসের মাথায় যারা যৌতুক দাবি করে তাদের টার্গেট থাকে বিয়ে নামের আইনী ও ধর্মীয় বন্ধনে একটি মেয়েকে বাধতে পারলেই অর্থ আদায়ের পৈশাচিক প্রক্রিয়া শুরু হবে। আর এই নিকৃষ্ট প্রক্রিয়ায় যৌতুকের টাকা আদায় করতে গিয়ে নিষ্ঠুরভাবে একটি নিষ্পাপ মেয়েকে হত্যা করতে দ্বিধান্বিত হলো না ওই মানুষ নামের পশুটা। ধর্মে আছে যৌতুক নেয়া অপরাধ। আবার প্রচলিত আইন ও মানবিকতার দৃষ্টিতেও যৌতুক ঘৃণিত কাজ। বিষয়টি নিয়ে প্রতিনিয়ত কত যে শালিস-বিচার হচ্ছে তার ইয়ত্তা নেই। বেশুমার নারী এই যৌতুকের কারণে প্রাণ হারাচ্ছেন। যৌতুকের বিরুদ্ধে ধর্ম আইন সমাজ এক কথায় সব স্তর একটা। তার পরও কিন্তু থামছে না এ যৌতুক নামক উচ্ছিষ্ট ভোগ থেকে এক শ্রেণির ইতর শ্রেণির মানুষ। আসলে ‘খাছিলত যায় মরলে’ প্রবাদ কথাটিই সত্য। আলোচিত ওই স্বামী না মরা পর্যন্ত তার খাছিলত যাবে না। সর্বোচ্চ শাস্তির বিধান হলে অবস্থা কি হবে তা হয়তো সমাজ বিজ্ঞানীরা ভালো বলতে পারবেন। তবে সরকারের উচিত এসব যৌতুক লোভীদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

সর্বশেষ

editorial

যানজটের শহর যশোর

কোটচাঁদপুরে সক্রিয় অপরাধী ও প্রতারক চক্র

কামাল হাওলাদার, কোটচাঁদপুর : ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুরে দিনে দুপুরে চুরি ছিনতাইসহ প্রতারক চক্রের প্রতারণার মাত্রা বেড়ে...

যানজটের শহর যশোর

যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতাল ঘেঁষে ১৬টি বেসরকারি চিকিৎসাসেবা প্রতিষ্ঠানের নেই পার্কিং ব্যবস্থা। হাসপাতালের...

রাজপথে আছি, রাজপথেই থাকবো : নার্গিস বেগম (ভিডিওসহ)

নিজস্ব প্রতিবেদক : যশোর জেলা বিএনপির আহ্বায়ক অধ্যাপক নার্গিস বেগম বলেছেন, সরকার তার মসনদ টিকিয়ে...

বাঁকড়ায় সরকারি গাছ কাটার অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক : ঝিকরগাছার বাঁকড়ায় সরকারি খাস জমি থেকে কয়েক লক্ষাধিক টাকার রেইনট্রি গাছ কাটার...

পহেলা অক্টোবর থেকে যশোরে পরিবহন চলাচল বন্ধ !

শনিবার যশোর জেলা পরিবহন সংস্থা শ্রমিক ইউনিয়নের নিজস্ব কার্যালয়ে সংগঠনের সভাপতি আজিজুল আলম মিন্টুর...

ঝিকরগাছায় অবৈধভাবে সার বিক্রিকালে ১৫ বস্তা উদ্ধার

নিজস্ব প্রতিবেদক : যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলা বাজারে অবৈধভাবে সার বিক্রির সময় ১৪ বস্তা ইউরিয়া ও...